• ২০২২ অগাস্ট ১২, শুক্রবার, ১৪২৯ শ্রাবণ ২৭
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:০৮ অপরাহ্ন
English
পরিচালনাপর্ষদ
আমাদের সাথে থাকুন আপনি ও ... www.timebanglanews.com

পদ্মা সেতুতে প্রথম টোল দিলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

  • প্রকাশিত ০৪:০৮ পূর্বাহ্ন শুক্রবার, অগাস্ট ১২, ২০২২
পদ্মা সেতুতে প্রথম টোল দিলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী  শেখ হাসিনা
ছবি সংগ্রহীত
এ,কে,সুমন- নিজস্ব প্রতিবেদক

স্বপ্নের পদ্মা সেতু উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। খুললো যোগাযোগের নতুন যুগের এক দুয়ার। মাওয়া প্রান্তে প্রথম যাত্রী পদ্মা সেতুতে ১৬ হাজার ৪০০ টাকা টোল দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর মধ্যে নিজের গাড়ির জন্য ৭৫০ টাকা টোল দিয়েছেন তিনি। প্রধানমন্ত্রীর গাড়িবহরে ১৮ টি গাড়ি ছিল।

পদ্মা সেতুর টোল কর্মী তানিয়া আফরিন প্রথম আলোকে প্রধানমন্ত্রীর ১৬ হাজার ৪০০ টাকা টোল দেয়ার কথা জানান।

কর্মকর্তারা বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীই প্রথম ব্যক্তি যিনি টোল দিয়ে পদ্মা সেতু পাড় হয়েছেন। পদ্মা সেতু আজ যানবাহন চলাচলের জন্য উদ্বোধন করা হলেও আগামীকাল সকাল ৬টায় সর্বসাধারণের যান চলাচলের জন্য খুলে দেয়া হবে বলে নিশ্চিত করেন তারা।

এরপর প্রধানমন্ত্রী উন্মোচন করেন সেতুর নাম ফলক। জাজিরা যাওয়ার পথে সেতুতে কিছুটা সময় কাটান বঙ্গবন্ধু কন্যা। এ সময় তিনি উপভোগ করেন বিমান বাহিনীর মনোজ্ঞ ফ্লাইং ডিসপ্লে।

অবশেষে হলো দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান। উন্মুক্ত হলো বাঙালির স্বপ্ন-সাহসের স্মারক পদ্মা সেতু।

শনিবার সকাল ১১টা ৪০ মিনিটে টোলপ্লাজার উদ্দেশে যাত্রা করেন প্রধানমন্ত্রী। ১১টা ৪৮ মিনিটে প্রথম যাত্রী হিসেবে পদ্মা সেতুতে টোল দেন তিনি। পরে মাওয়া প্রান্তে সেতুর উদ্বোধনী ফলক ও ম্যুরাল-১ উন্মোচন করেন।

এর আগে সুধী সমাবেশে ভাষণ দেন শেখ হাসিনা। ভাষণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, অনেক বাধা বিপত্তি উপেক্ষা করে পদ্মা সেতু নির্মাণ করা হয়েছে। এ সেতু শুধু পাথর-সিমেন্টের কাঠামো নয়, শক্তি-সাহস-আবেগের সমন্বয়। যারা বলেছিলেন নিজেদের টাকায় পদ্মা সেতু সম্ভব নয়, তাদের প্রতি কোনো অভিযোগ নেই। তবে এ সেতু তাদের আত্মবিশ্বাস বাড়াবে বলে জানান প্রধানমন্ত্রী।

সুধী সমাবেশ শেষে পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে একশো টাকার স্মারক নোট, ডাকটিকিট, স্যুভেনির, উদ্বোধনী খাম ও সিলমোহর প্রকাশ করেন প্রধানমন্ত্রী।

এরপর জাজিরা প্রান্তে যাওয়ার পথে সেতুতে কিছুটা সময় কাটান প্রধানমন্ত্রী। এ সময় বিমানবাহিনীর ৩১টি বিমান ও হেলিকপ্টারের এক মনোজ্ঞ ফ্লাইং ডিসপ্লে প্রদর্শন করে।

পরে শরীয়তপুরের জাজিরা প্রান্তে উদ্বোধনী ফলক ও দ্বিতীয় ম্যুরাল উন্মোচন করেন প্রধানমন্ত্রী।

সর্বশেষ